লিগ শুরু ইস্টবেঙ্গলের ড্র দিয়ে, সময় চাইলেন বিনো জর্জ

কলকাতা ফুটবল লিগে প্রথম ম্যাচ ছিল ইস্টবেঙ্গলের । সেই ম্যাচে এদিন রেনবো স্পোর্টস ক্লাবের বিরুদ্ধে ড্র করে লাল-হলুদ শিবির

Jul 14, 2023 - 00:45
 0  21
লিগ শুরু ইস্টবেঙ্গলের ড্র দিয়ে, সময় চাইলেন বিনো জর্জ

কলকাতা: বিনো জর্জের বক্তব্য কলকাতা, 13 জুলাই: ড্র দিয়ে কলকাতা ফুটবল লিগ শুরু করল ইস্টবেঙ্গল । বৃহস্পতিবার রেনবো অ্যাথলেটিক ক্লাবের বিপক্ষে ম্যাচ শেষ হয় গোলশূন্য ভাবে ।

অন্য দুই শ্রেষ্ঠ যখন প্রতি ম্যাচে গোলের উত্‍সবে মেতেছে, ওই স্থান ইস্টবেঙ্গলের গোলশূন্য ম্যাচ যেন দক্ষিণবঙ্গের ভ্যাবসা গরমের অস্বস্তিকর আবহাওয়ার মতো । এদিন কিশোরভারতী স্টেডিয়ামে ইস্টবেঙ্গল বনাম রেনবো অ্যাথলেটিক স্থায়ী সমিতির ম্যাচ দেখতে উপস্থিত হয়েছিলেন প্রায় হাজার দেড়েক দর্শক । প্রিয় টিমের সমর্থনে তাঁরা ড্রাম বাজানো, চান্টিং সব করলেন । তবুও তাঁরা যে আশায় মাঠে এসেছিলেন সেই গোলটাই তো হল না ।

প্রাক্তন ফুটবলার গৌতম চন্দ বহু বছর পরে বৃহস্পতিবার কিশোরভারতী স্টেডিয়ামে খেলা-ধুলা দেখতে গিয়েছিলেন । আগে রেগুলার কলকাতা ময়দানে ফুটবল জীবনের জন্য যাওয়া আসা ছিল তাঁর । সম্প্রতি আর যাওয়া হয়ে ওঠে না । সোনালি সত্তরের সোনাঝরা বিকেলের খেয়াল আজও সজীব তাঁর মনে । বর্তমানে কলকাতা ময়দানে না গেলেও নিয়মিত খবরটা রাখেন । কিশোরভারতী স্টেডিয়ামে ইস্টবেঙ্গলের খেলা পড়েছে বলে উপস্থিত হয়েছিলেন । ম্যাচ শেষে হতাশায় মাথা নাড়তে নাড়তে স্টেডিয়াম ছাড়লেন তিনি ।

ভিআইপি বক্সে বসেছিলেন প্রাক্তন ফুটবলার অলোক মুখোপাধ্যায়ও । সাতে পাঁচে থাকতে অপছন্দ করা অলোক মুখোপাধ্যায়ের মুখেও ইস্টবেঙ্গলের প্রথম ম্যাচের পারফরম্যান্স ঘিরে আশাব্যঞ্জক কিওয়ার্ড বের হল না । নিশ্চুপ অর্নব মণ্ডল, দীপঙ্কর রায় । ড্র দিয়ে কলকাতা লিগ ইস্টবেঙ্গল আগেও আরম্ভ করেছে । তা সত্ত্বেও খেলোয়াড়দের মান নিয়ে প্রথম ম্যাচের পরে প্রশ্ন ওঠার সিচুয়েশন তৈরি হয়নি ।

ম্যাচ পরের সাংবাদিক সম্মেলনে ইস্টবেঙ্গল কোচ বিনো জর্জ জানিয়েছেন, সময়াভাবে ম্যাচ প্র্যাকটিস না-করতে পারার জন্যই এই ছন্নছাড়া ফুটবল টিমের । একাধিক ফুটবলারের অসুস্থতায় সমস্যা শক্ত করেছে । তবে কয়েকটা ম্যাচ পরে ইস্টবেঙ্গলের ফুটবলে চেনা প্রবৃত্তি নোটিশ যাবে । ইস্টবেঙ্গল লিগ বিজয়ের দৌঁড়ে থাকবে এমনটাই দাবি, বিনো জর্জের ।

রেনবো অ্যাথলেটিক স্থায়ী সমিতির কোচের আক্ষেপ, তার টিমের অভিজ্ঞ ফুটবলাররা চান্স কাজে লাগাতে অসমর্থ । তবে ইস্টবেঙ্গল নিয়ে আশাবাদী তিনি । পাঁচেক নিউ ফুটবলারের খেলা দেবজিতের অনেক ভালো লেগেছে । তাঁর কথায়, "একটা টিম তিনদিন প্র্যাকটিস করে খেলতে নেমেছে । তারপরেও যা খেলেছে আমি ইস্টবেঙ্গলকে নিয়ে আশাবাদী । সময় পেলে চমৎকার খেলবে ।" খেলা-ধুলা শুরুর প্রথম পাঁচ মিনিটে মাঠে গুরুতর ঘা পান ইস্টবেঙ্গলের গোলরক্ষক আদিত্য পাত্র । ঘাড়ে চোট পাওয়ায় ওনাকে দ্রুত ডাক্তারখানায় নিয়ে যেতে হয় । আপাতত সুস্থ উনি ।

তবে এদিন বিনো জর্জ ইস্টবেঙ্গল ফুটবলারদের হতশ্রী ফুটবলের রিজন ব্যাখা করেছেন । তা সত্ত্বেও ফুটবলাররা কেন প্রাইমারি ভুলগুলো বারবার করলেন তার বর্ণনা দিতে পারলেন না উনি । রক্ষণে বোঝাপড়া নেই, মাঝমাঠে কুশ ছেত্রী ছাড়া প্রায় সকলেরই হতশ্রী ফুটবল । আক্রমণে স্ট্রাইকাররাও তথৈবচ । ফলে অন্তত দু'বার বিশেষ করে দ্বিতীয়ার্ধে গোল করার মত পরিস্থতি প্রস্তুত করেও লাল হলুদ ফুটবলাররা কাজের কাজটি করতে অসমর্থ । সব মিলিয়ে অন্য দুই প্রধানের সমর্থকদের উল্লাস যদি হয় সাফল্যের মজা প্রকাশ তাহলে বৃহস্পতিবার কিশোরভারতী স্টেডিয়ামে ইস্টবেঙ্গল সমর্থকদের চিত্‍কার হাহাকারের নামান্তর ।

What's Your Reaction?

like

dislike

love

funny

angry

sad

wow

Tathagata Reporter